বেচেঁ থাকার আকুতি দিলারা বেগমের

85227324_3023282737716715_8250595612559409152_n.jpg

অর্থাভাবে বিনা চিকিৎসায় ধীরে ধীরে নিভে যাচ্ছে নরসিংদীর শিবপুর উপজেলার চক্রধা ইউনিয়নের লাকুশী গ্রামের ২ সন্তানের জননী দিলারা বেগম(৪৫) এর জীবন প্রদীপ। দিলারা বেগম দীর্ঘ ৫ বছর যাবৎ ব্রেষ্ট ক্যান্সারসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়ে প্রথমে ঢাকা স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে কলকাতা সড়জগুপ্তা ক্যান্সার হাসপাতালে দুইটি অপারেশন করানো হয়। এতে তার স্বাস্থ্যের কোন উন্নতি না হওয়ায় উক্ত হাসপাতাল হইতে মুম্বাই টাটা ক্যান্সার হাসপাতালে চিকিৎসা নেওয়ার জন্য পরামর্শ দেন চিকিৎসকগণ। কিন্তু এই উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রায় ১৫-২০ লক্ষ টাকার প্রয়োজন বলে জানান ডাক্তার। ইতিপূর্বে চিকিৎসা খরচ যোগাতে তার পরিবারের নগদ অর্থ ও জমা জমি যা ছিল সবকিছু বিক্রি করে বর্তমানে মানবেতর জীবন যাপন করছে। তার পরিবারে সদস্য সংখ্যা ৪ জনের মধ্যে স্বামী হাবিবুর রহমান একজন সিএনজি চালক, বড় ছেলে শ্রমিকের কাজ করে এবং ছোট ছেলে এইচ.এসসি পাশ করে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির অপেক্ষায় রয়েছে। তাঁর উন্নত চিকিৎসার জন্য ১৫-২০ লক্ষ টাকা যোগার করা অসম্ভব। তাই সকলের সহযোগীতা কামনা করছে অসহায় পরিবার। সকলের আর্থিক সহযোগীতাই বেঁচে যেতে পারে দুই সন্তানের জননী অসহায় দিলারা বেগম।

দিলারা বেগমকে বাঁচাতে সবাই সহযোগীতার হাত বাড়িয়ে দিন। সবার সহযোগীতা পেলে বাঁচবে দিলারা বেগম। পরিবারটি আজ অসহায় মাকে বাচানোর আকুতি নিয়ে দারস্থ হয়েছে সকলের দোয়ারে।

তাকে সাহায্য পাঠানো যাবে বিকাশ নাম্বার: পার্সনাল(০১৯৪৪২০৪৮০৯), অথবা সোনালী ব্যাংক নরসিংদীর শিবপুর শাখা, একাউন্ট নম্বর- ১৭১৭৮০১০২৫৯৬৭।

আমাকে শেয়ার করুন

PinIt
scroll to top